অগ্রবর্তী সময়ের ককপিট
বিশ্ব সর্বশেষ

গাজার জটিল অবস্থা: মৃত্যুর সংখ্যা বাড়ছে, কিন্তু মরদেহ রাখার জায়গা নেই হিমঘরে

‘মরদেহ এত বেশি যে কাফনের কাপড়ও যথেষ্ট পাওয়া যাচ্ছে না। হাসপাতালে থাকা মরদেহগুলোর অবস্থা এতটাই খারাপ যে চেনা যায় না।’ কথাগুলো বলছিলেন ফিলিস্তিনের গাজা উপত্যকার দেইর আল বালাহ এলাকার আল-আকসা হাসপাতালের একজন চিকিৎসাকর্মী।

গাজায় ইসরায়েলি বাহিনীর বিরামহীন হামলায় প্রতিদিন এত ফিলিস্তিনি হতাহত হচ্ছেন যে এই হাসপাতালে তাঁদের রাখা বা ঠাঁই দেওয়ার জায়গা হচ্ছে না। আহত ব্যক্তিদের চিকিৎসা দিতে হিমশিম খাচ্ছেন চিকিৎকেরা। মরদেহে হাসপাতালের হিমঘরগুলো ভরে গেছে। হাসপাতালের আঙিনায় সাদা কাপড় দিয়ে ঢেকে রাখা হচ্ছে নতুন আসা মরদেহগুলো।

ফিলিস্তিনের গাজা উপত্যকায় ইসরায়েলের হামলার প্রতিবাদে ইউরোপীয় কমিশনের প্রধান কার্যালয়ের বাইরে বিক্ষোভ। গতকাল বেলজিয়ামের রাজধানী ব্রাসেলসেছবি: রয়টার্স

বিদ্যুৎ ও চিকিৎসা সরঞ্জামের তীব্র সংকটে থাকা গাজার অন্য হাসপাতালগুলোর চিত্রও একই। যেমন উত্তর গাজার আল–কুদস হাসপাতাল। হাসপাতালটির কাছের ভবনগুলো ইসরায়েলের হামলায় ধ্বংসস্তূপে পরিণত হয়েছে। আহত ৫০০ জনের বেশি মানুষকে চিকিৎসা দিচ্ছেন হাসপাতালটির মাত্র ২৩ জন চিকিৎসক। আহত ব্যক্তিদের মধ্যে কাকে আগে চিকিৎসা দেবেন, বুঝে উঠতে পারছেন না তাঁরা।

৭ অক্টোবর ফিলিস্তিনের স্বাধীনতা আন্দোলনের সশস্ত্র গোষ্ঠী হামাস অতর্কিতে ইসরায়েলি ভূখণ্ডে হামলা চালায়। এর পর থেকে গাজায় নৃশংস হামলা চালিয়ে যাচ্ছে ইসরায়েল। গতকাল রোববারও গাজায় ভয়াবহ বোমা হামলা হয়েছে। স্থানীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, সর্বশেষ ২৪ ঘণ্টায় (গতকাল সন্ধ্যা পর্যন্ত) হামলায় ২৬৬ ফিলিস্তিনির মৃত্যু হয়েছে। তাদের মধ্যে ১১৭টি শিশু। এ নিয়ে গতকাল পর্যন্ত গাজায় ইসরায়েলের বোমায় ৪ হাজার ৬৫১ জন নিহত হয়েছে। আহত ১৪ হাজার ২৪৫ জন। নিহত ব্যক্তিদের বেশির ভাগই নারী ও শিশু। এদিকে হামাসের হামলায় ইসরায়েলে এখন পর্যন্ত ১ হাজার ৪০০ জনের বেশি মানুষের মৃত্যু হয়েছে। আহত ৫ হাজারের বেশি।

এরই মধ্যে গাজায় হামলা আরও জোরদার করার হুমকি দিয়েছেন ইসরায়েলের সামরিক বাহিনীর মুখপাত্র ড্যানিয়েল হ্যাগারি। শনিবার রাতে তিনি বলেছেন, গাজার উত্তরাংশে (গাজা সিটি) এখনো যারা আছে, তাদের ঘরবাড়ি ছেড়ে দক্ষিণে চলে যেতে হবে। যারা যাবে না, তাদের হামাসের প্রতি সহানুভূতিশীল হিসেবে ধরে নেওয়া হবে।

গতকাল গাজার খান ইউনিসের কাছে ইসরায়েলি কয়েকজন সৈন্য একটি সীমান্ত বেড়া ‘মেরামত’ করতে গেলে হামাসের যোদ্ধারা গুলিবর্ষণ করেন। এতে সৈন্যরা পিছু হটেন।

সম্পর্কিত খবর

৪১ শ্রমিক উদ্ধারে একাধিক নতুন পরিকল্পনা

Zayed Nahin

যুগ্মসচিব পদে পদোন্নতি পেলেন ২২১ কর্মকর্তা

Shopnamoy Pronoy

একদিনে করোনায় সর্বোচ্চ সংক্রমণ-মৃত্যু যুক্তরাজ্যে

gmtnews

মন্তব্য করুণ

এই ওয়েবসাইটটি আপনার অভিজ্ঞতা উন্নত করতে কুকি ব্যবহার করে। আমরা ধরে নিচ্ছি যে আপনি এটির সাথে ঠিক আছেন, তবে আপনি ইচ্ছা করলেই অপ্ট আউট করতে পারেন। স্বীকার করুন বিস্তারিত