অগ্রবর্তী সময়ের ককপিট
ক্রিকেট খেলা সর্বশেষ

প্রধান নির্বাচক ওয়াহাব রিয়াজকে নিয়ে কেন পাকিস্তান দলে অসন্তুষ্টি

বিশ্বকাপের পর নানা ধরনের রদবদলের ভেতর দিয়ে যাচ্ছে পাকিস্তান ক্রিকেট দল। দলের নেতৃত্ব, কোচিং স্টাফ এবং টিম ম্যানেজমেন্টেও এসেছে পরিবর্তন। প্রধান নির্বাচকের দায়িত্ব পেয়েছেন ফাস্ট বোলার ওয়াহাব রিয়াজ। কিন্তু দায়িত্ব নেওয়ার পর মাস পেরোনোর আগেই পাকিস্তান দলের খেলোয়াড়দের মধ্যে ওয়াহাবকে নিয়ে তৈরি হয়েছে অসন্তুষ্টি।

ভারতীয় সংবাদ সংস্থা পিটিআইয়ের বরাত দিয়ে পাকিস্তানের সংবাদমাধ্যম দ্য ডন জানিয়েছে, বিদেশি লিগে খেলার ব্যাপারে অনাপত্তিপত্র দিতে দেরি করছেন ওয়াহাব, যা মানতে পারছেন না ক্রিকেটাররা। এ নিয়ে অনেক ক্রিকেটার নাকি নিজেদের অসন্তুষ্টির কথাও জানিয়েছেন।

পিটিআইকে তাদের একটি সূত্র জানিয়েছে, সম্প্রতি অলরাউন্ডার ইমাদ ওয়াসিমের অবসরে যাওয়ার পেছনেও ভূমিকা রেখেছে এ বিষয়টি। বিদেশি লিগে খেলার অনাপত্তিপত্র নিয়ে খেলোয়াড় এবং প্রধান নির্বাচকের মধ্যে তৈরি হওয়া বিবদমান পরিস্থিতির কারণেই নাকি আন্তর্জাতিক ক্রিকেট থেকে সরে দাঁড়ানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছেন ইমাদ। এর আগে গত শুক্রবার এক ঘোষণায় আনুষ্ঠানিকভাবে আট বছরের ক্যারিয়ারের ইতি টানেন ইমাদ।

সেই সূত্র পিটিআইকে বলেছে, ‘বর্তমানে কেন্দ্রীয় চুক্তিতে থাকা সব খেলোয়াড়কে ওয়াহাব সতর্কবার্তা দিয়ে জানিয়ে দিয়েছেন যে সবার আগে পাকিস্তানকে অগ্রাধিকার দিতে হবে। পাশাপাশি কেউ যদি জাতীয় দলের জন্য বিবেচিত হতে চায়, তবে তাকে অবশ্যই ঘরোয়া ক্রিকেটে খেলতে হবে।’

এমন পরিস্থিতিতে সংযুক্ত আরব আমিরাত, অস্ট্রেলিয়া এবং দক্ষিণ আফ্রিকায় টি–টেন ও টি–টোয়েন্টি লিগে আর্কষণীয় চুক্তির প্রস্তাব থাকায় অবসরের পথে হাঁটার সিদ্ধান্ত নেন ইমাদ। সূত্র জানিয়েছে, ‘ইমাদ এবং অন্য খেলোয়াড়েরা এখনো আবুধাবিতে টি–টেন লিগে খেলার জন্য অনাপত্তিপত্র পাননি। পাশাপাশি বোর্ড এখনো অস্ট্রেলিয়ায় অনুষ্ঠেয় বিগ ব্যাশে খেলার জন্য অনাপত্তিপত্র দেওয়ার ব্যাপারে সিদ্ধান্ত নেয়নি।’ এসব অনিশ্চয়তা মূলত খেলোয়াড়দের দুশ্চিন্তায় ফেলেছে।

এদিকে সম্প্রতি পিসিবিপ্রধান জাকা আশরাফ সংবাদমাধ্যমকে জানিয়েছেন, পাকিস্তান সুপার লিগের বাইরে কেবল একটি বিদেশি লিগে খেলার অনুমতি পাবেন কেন্দ্রীয় চুক্তির আওতায় থাকা ক্রিকেটাররা। ভারতে সদ্য শেষ হওয়া বিশ্বকাপে দলের ভরাডুবির জন্যও এশিয়া কাপের পূর্বে আগের পিসিবিপ্রধানের অনাপত্তিপত্র দেওয়াকে দায়ী করেছেন পিসিবিপ্রধান। বিশ্বকাপে দল সেমিফাইনালে উত্তীর্ণ হতে না পারায় এই সিদ্ধান্তগুলো নিয়ে নতুন করে ভাবনার কথা বলেছেন তিনি।

এদিকে সম্প্রতি প্রধান নির্বাচকের দায়িত্ব পাওয়া ওয়াহাব নিজেও আগামী বছরের পিএসএলে খেলার কথা জানিয়েছেন। পাশাপাশি তিনি খেলোয়াড়দের জাতীয় দলের দায়িত্ব এবং ফ্র্যাঞ্চাইজি লিগে খেলার ব্যাপারে ভারসাম্য আনার ব্যাপারেও জোর দিয়েছেন। কিন্তু ওয়াহাব–জাকার এই সিদ্ধান্ত মানতে পারছেন না অনেক ক্রিকেটার। যাঁদের কেউ কেউ উদ্বিগ্ন হয়ে অনাপত্তিপত্র পাওয়ার অপেক্ষায়ও আছেন।

সম্পর্কিত খবর

১২ সেপ্টেম্বর শিক্ষা প্রতিষ্ঠান খুলতে পারে: শিক্ষামন্ত্রী

gmtnews

বেলিংহামের তিনে তিন, জয়ে ফিরল ইউনাইটেড

Zayed Nahin

জাতিসংঘ মহাসচিবের জিসিআরজি আমন্ত্রণ সাদরে গ্রহণ প্রধানমন্ত্রীর

gmtnews

মন্তব্য করুণ

এই ওয়েবসাইটটি আপনার অভিজ্ঞতা উন্নত করতে কুকি ব্যবহার করে। আমরা ধরে নিচ্ছি যে আপনি এটির সাথে ঠিক আছেন, তবে আপনি ইচ্ছা করলেই অপ্ট আউট করতে পারেন। স্বীকার করুন বিস্তারিত