31 C
Dhaka
May 29, 2024
অগ্রবর্তী সময়ের ককপিট
বাংলাদেশ সর্বশেষ

প্রাথমিকের মাঠ পর্যায়ের শিক্ষা কর্মকর্তারা নতুন পদনাম পাচ্ছেন

প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তরের মাঠ পর্যায়ের উপজেলা বা থানা শিক্ষা অফিসার ও উপজেলা বা থানা সহকারী শিক্ষা অফিসার এবং প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তরের শিক্ষা অফিসার ও সহকারী শিক্ষা অফিসার পদের পদনাম পরিবর্তনের প্রস্তাব দিয়েছে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়।

বৃহস্পতিবার (০৯ মে) সচিবালয়ে প্রশাসনিক উন্নয়ন সংক্রান্ত সচিব কমিটির ২০২৩-২৪ অর্থবছরের ১২তম সভায় এই প্রস্তাব উত্থাপিত হওয়ার কথা রয়েছে।

মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ এবং প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয় জানায়, প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তরের ‘শিক্ষা অফিসারদের পদবি পরিবর্তন করে ‘প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার’ করা হচ্ছে। এছাড়া উপজেলা বা থানা শিক্ষা অফিসারদের পদবি পরিবর্তন করে উপজেলা বা থানা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার করা হবে।

মন্ত্রণালয় জানায়, মার্শাল ল কমিটি অন অর্গানাইজেশনাল সেট-আপ কমিটির সুপারিশে উপজেলা বা থানা শিক্ষা অফিসার পদটি সৃজন করা হয়। বর্তমান সরকার ক্ষমতায় আসার পর এসব পদ ও নাম পরিবর্তনের উদ্যোগ নেয়। প্রশাসনিক উন্নয়ন সংক্রান্ত সচিব কমিটির বৈঠক এ প্রস্তাব অনুমোদন দেওয়া হতে পারে।

মন্ত্রিপরিষদ সচিব মো. মাহবুব হোসেনের সভাপতিত্বে এ সভায় ২৩টি মন্ত্রণালয় ও বিভাগের পক্ষ থেকে নাম-পদসৃজন এবং নিয়োগ বিধিমালার সংশোধনের প্রস্তাব সভায় উপস্থাপন করা হওয়ার কথা রয়েছে। সভায় সংশ্লিষ্ট সচিবদের যথাসময়ে বৈঠকে যোগ দিতে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ থেকে চিঠি পাঠানো হয়েছে।

প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়ের প্রস্তাবে বলা হয়, প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তরের ‘শিক্ষা অফিসারদের’ পদবি পরিবর্তন করে ‘প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার’ করা হচ্ছে। এছাড়া উপজেলা বা থানা শিক্ষা অফিসারদের পদবি পরিবর্তন করে উপজেলা বা থানা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার করা হচ্ছে। বর্তমানে দুই ক্ষেত্রেই নবম গ্রেডে (প্রথম শ্রেণি) বেতন-ভাতা পান কর্মকর্তারা। পদের নাম পরিবর্তন হলেও আগের মতোই বেতন-ভাতা পাবেন তারা।

একইভাবে প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তরের সহকারী শিক্ষা অফিসারদের পদ হবে ‘সহকারী প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার’। উপজেলা বা থানার ক্ষেত্রেও একই পরিবর্তন আনা হচ্ছে। এই কর্মকর্তারা আগের মতোই দশম গ্রেডে বেতন-ভাতা পাবেন।

এর আগে গত ১২ ফেব্রুয়ারি প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তর থেকে মন্ত্রণালয়ে পদনাম পরিবর্তনের প্রস্তাব পাঠানো হয়। মন্ত্রণালয়ের সচিবের কাছে পাঠানো পদনাম পরিবর্তনের সার-সংক্ষেপে বলা হয়, প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তরের আওতাধীন উপজেলা পর্যায়ের উপজেলা বা থানা শিক্ষা অফিসার পদটি ‘মার্শাল ল কমিটি অন অর্গানাইজেশনাল সেটআপ’ কমিটির সুপারিশকৃত একটি পদ।

২০২৩ সালের জেলা প্রশাসক সম্মেলনে চুয়াডাঙ্গার ডিসি প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তরের আওতাধীন উপজেলা পর্যায়ের উপজেলা শিক্ষা অফিসার পদটির নাম পরিবর্তন করে উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার নাম করার প্রস্তাব দিয়েছিলেন।

এরই পরিপ্রেক্ষিতে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয় থেকে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ে প্রস্তাব পাঠানো হয়। জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয় এ প্রস্তাবে সম্মতি দেয়। কিছু শর্ত সাপেক্ষে অর্থ মন্ত্রণালয়ও পদনাম পরিবর্তনে সম্মতি দিয়েছে।

প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয় জানায়, দুই মন্ত্রণালয়ের সম্মতির পর এখন সরকারি আদেশ বা জিও জারির জন্য প্রশাসনিক উন্নয়ন সংক্রান্ত সচিব কমিটির সুপারিশ গ্রহণ বাধ্যতামূলক। এজন্য এ কমিটিতে প্রস্তাবটি উপস্থাপনের জন্য পাঠানো হয়েছে।

সম্পর্কিত খবর

মিরাজের সেঞ্চুরিটাই কি তাহলে ঝামেলার মূলে

Shopnamoy Pronoy

আজ মধ্যরাত থেকে ২২ দিন পর্যন্ত ইলিশ ধরা নিষেধ

Zayed Nahin

বিশ্বব্যাপী কোভিড-১৯ সংক্রমণ জুনে ১.৫ গুণ হ্রাস

News Editor

মন্তব্য করুণ

এই ওয়েবসাইটটি আপনার অভিজ্ঞতা উন্নত করতে কুকি ব্যবহার করে। আমরা ধরে নিচ্ছি যে আপনি এটির সাথে ঠিক আছেন, তবে আপনি ইচ্ছা করলেই অপ্ট আউট করতে পারেন। স্বীকার করুন বিস্তারিত