অগ্রবর্তী সময়ের ককপিট
খেলা ফুটবল সর্বশেষ

যে দুই ডিফেন্ডারকে সবচেয়ে কঠিন মনে হয়েছে কেইনের

গত এক দশকে বিশ্বের অন্যতম সেরা স্ট্রাইকার ও সর্বোচ্চ গোলদাতাদের একজন হ্যারি কেইন। ৩০ বছর বয়সী ইংলিশ ফুটবলার টটেনহাম হটস্পারের হয়ে রেকর্ডের পর রেকর্ড গড়ে ব্যক্তিগত অর্জনের পাল্লা ভারী করেছেন। কিন্তু দলীয়ভাবে কিছু জিততে না পারায় গত আগস্টে টটেনহাম ছেড়ে নাম লিখিয়েছেন বায়ার্ন মিউনিখে।

লিগ ও ক্লাব বদলালেও নিজেকে বদলাননি কেইন। গোলের নেশাটা রয়েছে আগের মতোই। বুন্দেসলিগায় বায়ার্নের হয়ে এরই মধ্যে ১৮ গোল করেছেন, যা ইউরোপে শীর্ষ পাঁচ ঘরোয়া লিগের মধ্যে সর্বোচ্চ।

শীর্ষ পর্যায়ের ফুটবলে ১৪ বছর পার করে ফেলা কেইন এত এত গোল করার পথে প্রতিপক্ষের রক্ষণভাগের বাধার মুখেও পড়েছেন বহুবার।

তবে দীর্ঘ ক্যারিয়ারে মুখোমুখি হওয়া ডিফেন্ডারদের মধ্যে দুজনকে সবচেয়ে কঠিন মনে হয়েছে কেইনের। তাঁরা হলেন ইংল্যান্ড ও চেলসির সাবেক অধিনায়ক জন টেরি এবং ইতালি ও জুভেন্টাসের সাবেক অধিনায়ক জর্জো কিয়েলিনি।

ইএসপিএনকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে এই দুজনের নাম বলেছেন কেইন, ‘আমি যাদের মুখোমুখি হয়েছি, এমন ডিফেন্ডারদের মধ্যে টেরির বিপক্ষে খেলা সবচেয়ে কঠিন ছিল। ক্যারিয়ারের শুরুর দিকে টেরির মুখোমুখি হয়েছি। তিনি বিশ্বের সেরা ডিফেন্ডারদের একজন। চটপটে ও বুদ্ধিমান। এরপর (জর্জো) কিয়েলিনির নাম বলব। ইতালি ও জুভেন্টাসের বিপক্ষে খেলার সময় কিয়েলিনির মুখোমুখি হয়েছি। তিনিও খুব চটপটে। শরীরের ব্যবহার ভালো জানেন, বেশ শক্তিশালী এবং বাতাসে ভেসে আসা বলের নিয়ন্ত্রণ ভালো জানেন।’

চেলসি কিংবদন্তি টেরি ও সাবেক জুভেন্টাস ডিফেন্ডার কিয়েলিনিকে অনেকে সর্বকালের সেরা সেন্টার–ব্যাকদের তালিকায় রাখেন। চেলসির হয়ে ২০১২ সালে চ্যাম্পিয়নস লিগ জেতা টেরি ২০১৮ সালে খেলোয়াড়ি জীবনকে বিদায় বলেছেন। এরপর কোচিংকে পেশা হিসেবে বেছে নেন। যে ক্লাব তাঁকে বিশ্বমানের তারকা বানিয়েছে, বর্তমানে সেই চেলসিরই একাডেমি দলের কোচের দায়িত্বে আছেন।

৩৯ বছর বয়সী কিয়েলিনি এখনো খেলে চললেও ইউরোপীয় ফুটবলের পাট চুকিয়ে মার্কিন মুলুকে পাড়ি জমিয়েছেন। খেলছেন মেজর লিগ সকারের (এমএলএস) ক্লাব লস অ্যাঞ্জেলেস এফসির হয়ে। কিয়েলিনির অধিনায়কত্বেই ২০২০ ইউরো জিতেছিল ইতালি। লন্ডনের ওয়েম্বলির ফাইনালে হ্যারি কেইনের নেতৃত্বাধীন ইংল্যান্ডকে টাইব্রেকারে হারিয়েছিল ইতালি। ওই ম্যাচে কেইনকে সেভাবে গোলের সুযোগ তৈরি করতে দেননি কিয়েলিনি।

জার্মান বুন্দেসলিগায় কেইনের বায়ার্নের পরের ম্যাচ আগামী শনিবার। আইনট্রাখট ফ্রাঙ্কফুর্টের মাঠে সেদিন জিততে পারলেই বেয়ার লেভারকুসেনকে সরিয়ে পয়েন্ট তালিকার শীর্ষে উঠে আসবে বায়ার্ন।

গত শনিবারই অবশ্য শীর্ষে উঠতে পারত কেইনের দল। কিন্তু তীব্র তুষারপাতের কারণে ইউনিয়ন বার্লিনের বিপক্ষে ম্যাচটি স্থগিত হয়ে যায়। তবে টানা খেলার মধ্যে থাকা কেইনদের জন্য সেটা ‘শাপে বর’ হয়েছে। এক সপ্তাহ বিশ্রামের সুযোগ পেয়েছেন তিনি ও তাঁর দল।

সম্পর্কিত খবর

বাংলাদেশ-ভারত জেসিসি বৈঠক ১৯ জুন: মোমেন

gmtnews

পাকিস্তান-শ্রীলঙ্কা ম্যাচ বৃষ্টিতে ভেসে গেলে ফাইনালে কারা

Shopnamoy Pronoy

আগাছাকে কি করতে হবে সেটা ভাবতে হবে: প্রধানমন্ত্রী

gmtnews

মন্তব্য করুণ

এই ওয়েবসাইটটি আপনার অভিজ্ঞতা উন্নত করতে কুকি ব্যবহার করে। আমরা ধরে নিচ্ছি যে আপনি এটির সাথে ঠিক আছেন, তবে আপনি ইচ্ছা করলেই অপ্ট আউট করতে পারেন। স্বীকার করুন বিস্তারিত